সোমবার, এপ্রিল ২২, ২০২৪
প্রচ্ছদচট্রগ্রাম প্রতিদিনচট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দোকানদারকে ছাত্রলীগের মারধরের ঘটনায় দোকান বন্ধ রেখেছে ক্যাম্পাসের ব্যবসায়ীরা।

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে দোকানদারকে ছাত্রলীগের মারধরের ঘটনায় দোকান বন্ধ রেখেছে ক্যাম্পাসের ব্যবসায়ীরা।

নাহিদ উল আলম, চবি প্রতিনিধিঃ চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে গতকাল রাত ১০.৩০ ঘটিকায় ছাত্রলীগের নামদারী মিমু ও তার ছেলেরা জিয়া ডিজিটাল ফটোষ্ট্যাট এর কর্মচারীদের মারধর করে। এ ঘটনার প্রতিবাদে ব্যবসায়ী সমিতি সকাল ১০ টা থেকে ১২ টা পর্যন্ত দোকান পাট বন্ধ করে রাখে

খোঁজ-খবর নিয়ে জানা যায় যে, মিমু ও তার দলবল জিয়া ফটোষ্ট্যাটের মালিকের কাছ থেকে ৫০,০০০/- (পঞ্চাশ হাজার) টাকা বা মাসে ২,০০০/- (দুই হাজার) টাকা চাঁদা দাবী করে। এতে জিয়া ফটোষ্ট্যাটের মালিক চাঁদা দিতে অস্বীকৃতি জানালে তারা কর্মচারীদের মারধর করে। আহত কর্মচারীদেরকে নিকটস্থ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়।

সংশ্লিষ্ট সূত্রে জানা গেছে, ছাত্রলীগের বিশ্ববিদ্যালয় শাখার সভাপতি মামুনুল হকের অনুসারী হিসেবে পরিচিত মিজানুর রহমান মিনুর নেতৃত্বে ৮ থেকে ৯জন যুবক জিয়াকে মারধর করেন। এ ঘটনার প্রতিবাদে ব্যবসায়ী সমিতি সকাল ১০ টা থেকে ১২ টা পর্যন্ত দোকান পাট বন্ধ করে রাখে প্রতিবাদে বিক্ষোভ শুরু করে। তারা দোকান-পাট বন্ধ রেখে বিশ্ববিদ্যালয় প্রক্টরের কাছে এই অন্যায়ের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী করেন। প্রক্টর তাদের এই দাবী মেনে নিয়ে ০৩ (তিন) সদস্য বিশিষ্ট তদন্ত কমিটি গঠন করে। বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর আনোয়ার হোসেন  বলেন, এবিষয়ে তদন্ত করে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

আরও পড়ুন

সর্বশেষ