শুক্রবার, ডিসেম্বর ১, ২০২৩
প্রচ্ছদআরো খবর......মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্রকে হারিয়ে সুপার কাপ ফাইনাল নিশ্চিত করল মোহামেডান

মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্রকে হারিয়ে সুপার কাপ ফাইনাল নিশ্চিত করল মোহামেডান

mohamedanউইঙ্গার মোবারক হোসেনের দারুণ পারফরমেন্সে মুক্তিযোদ্ধা ক্রীড়া চক্রকে হারিয়ে সুপার কাপ ফাইনাল নিশ্চিত করল মোহামেডান স্পোর্টিং ক্লাব। শনিবার বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়ামে দ্বিতীয় সেমিফাইনালে ২-০ গোলের জয় পেয়েছে মোহামেডান।

২৫ জুন শিরোপার লড়াইয়ে শেখ রাসেলকে মোকাবিলা করবে মোহামেডান।

১৩ মিনিটে মোহামেডানকে এগিয়ে নেওয়ার দারুণ সুযোগ পেয়েও মিস করেন রজনি। হাবিবুর রহমান সোহাগের ফ্রি কিক থেকে পাওয়া ক্রসে পা লাগাতে পারেননি তিনি। কয়েক মুহূর্ত পর বক্সে ঢুকে মোবারক শট নিলে বল চলে যায় সোজা মুক্তিযোদ্ধা গোলরক্ষক জিয়াউর রহমান জিয়ার হাতে। ৪৩ মিনিটে ফরোয়ার্ড মোহাম্মদ বিপ্লবের ব্যর্থ শট হতাশ করে মুক্তিযোদ্ধাকে।

বিরতিতে যাওয়ার আগ মুহূর্তে মোবারক একজন ডিফেন্ডারকে কাটিয়ে বাঁকানো শটে দারুণ গোলে এগিয়ে দেন সাদা কালো জার্সিধারীদের। ৬১ মিনিটে ওয়াহেদের পাস থেকে বল নিয়ে ক্ষিপ্রগতিতে দুর্দান্ত শটে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন মোবারক।

জয়ের পর শিরোপা পেতে আত্মবিশ্বাসী মোহামেডান কোচ সাইফুল বারী টিটু,‘ক্লান্তির কারণে পাঁচজন খেলোয়াড়কে বিশ্রামে রেখেছিলাম আমরা। তবে প্রথমার্ধে একটি গোল পাওয়ায় বেশি সুবিধা হয়েছে আমাদের। মুক্তিযোদ্ধার খেলোয়াড়রাও ভালো খেলেছে। ফাইনালে আমাদের প্রতিপক্ষ শেখ রাসেল। জাতীয় দলের বেশ কয়েকজন খেলোয়াড় তাদের আছে। তবে বিদেশি নেই বলে আমরাও চেষ্টা করব শিরোপা জিততে।’

ম্যাচসেরা মোবারক জানালেন,‘সুপার কাপের আগে মোহামেডান কর্মকর্তারা আমাদের উপর ভরসা করতে পারছিল না। চ্যালেঞ্জ নিয়েছিলাম যে এই টুর্নামেন্টে ভালো করব। আমরা অনেকটা পথই এগিয়েছি।’

মাঠে খেলোয়াড়রা ঠিকমতো দায়িত্ব পালনে ব্যর্থ মনে করেন মুক্তিযোদ্ধা কোচ শফিকুল ইসলাম মানিক,‘গোলের সুযোগ পেয়েও কাজে লাগাতে পারিনি আমরা। ফরোয়ার্ডদেরও সমস্যা ছিল। আর মোহামেডান ৪৫ মিনিটে গোল দেওয়ায় আমরা পিছিয়ে পড়েছিলাম।  মাঠেও আমাদের খেলোয়াড়রা নিজেদের দায়িত্ব পালন করতে পারেনি।’

আরও পড়ুন

সর্বশেষ