ব্রেকিং নিউজ

বাংলাদেশে অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তি প্রসারের লক্ষ্যে ব্র্যাক ব্যাংক-কে ঋণ দিবে যুক্তরাজ্যের সিডিসি

বাংলাদেশের ব্যাংকিং খাতে সর্বোচ্চ মার্কেট ক্যাপিটালাইজেশন অর্জনকারী প্রতিষ্ঠান, ব্র্যাক ব্যাংক লিমিটেড, -কে ৩০ মিলিয়ন মার্কিন ডলার ঋণ দেয়ার প্রতিশ্রুতি ঘোষণা করলো যুক্তরাজ্যের বিখ্যাত উন্নয়ন অর্থায়ন প্রতিষ্ঠান, সিডিসি গ্রুপ পিএলসি। ব্র্যাক ব্যাংক বিশ্বের সবচেয়ে বড় এনজিও, ব্র্যাক-এর প্রতিষ্ঠান, যা কার্যকর বিনিয়োগের মাধ্যমে অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তির জন্য দীর্ঘদিন কাজ করে আসছে।BRAC Bank-CDC PLC UK

সিডিসি’র এই পুঁজি ব্র্যাক ব্যাংক-কে রপ্তানিমুখী ও অন্যান্য ধরনের ব্যবসা প্রসারে ঋণ কার্যক্রম বাড়াতে সহায়তা করবে। এ ফলে এই রপ্তানিমুখী প্রতিষ্ঠানগুলো কর্মসংস্থান বাড়িয়ে বাংলাদেশের অর্থনীতিতে ইতিবাচক অবদান রাখবে। বাংলাদেশের মানুষের মধ্যে ব্যাংকিং সেবা গ্রহণের হার অপেক্ষাকৃত কম, দীর্ঘমেয়াদি ঋণও কম পাওয়া যায়; যার কারণে ক্ষুদ্র ও মাঝারি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলো (এসএমই) ব্যবসা সম্প্রসারণ করতে পারছে না, যা দেশের অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধিকে বাধাগ্রস্ত করছে। অর্থায়নের মাত্রা ও সুফল বাড়িয়ে তোলার একটি শক্তিশালী কৌশল হিসেবে আর্থিক প্রতিষ্ঠানগুলোতে দীর্ঘমেয়াদি পুঁজি বিনিয়োগ করে থাকে সিডিসি, যার ফলে এই নতুন পুঁজির সুবিধা নিয়ে ব্যাংকগুলো গ্রাহকদের ঋণ দেবার ক্ষেত্রে নিজেদের সামর্থ্য বাড়িয়ে নিতে পারে।
বাংলাদেশ জুড়ে ১৮৭টি শাখা, ৪৫৬টি এসএমই ইউনিট অফিস, ১৪০টি এজেন্ট ব্যাংকিং আউটলেট এবং ৪৬০টি এটিএম-এর মাধ্যমে এসএমই, কর্পোরেট ও রিটেইল খাতে ১২ লক্ষ গ্রাহককে ব্যাংকিং সেবা প্রদান করে আসছে ব্র্যাক ব্যাংক। এসএন্ডপি’র বি+ এবং মুডি’জ-এর বিএ৩ ক্রেডিট রেটিং পাওয়া ব্র্যাক ব্যাংক-ই ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জের তালিকাভুক্ত সব কোম্পানির মধ্যে সর্বোচ্চ বিদেশি বিনিয়োগের (৪৩%) অধিকারী।
এসএমই ও বড় কর্পোরেট প্রতিষ্ঠানগুলোতে ফোকাসের পাশাপাশি রিটেইল ফিন্যান্স কার্যক্রমের আওতায় গ্রাহকদের বাড়ি কিনতে, তাদের সন্তানদেরকে শিক্ষিত করে তুলতে এবং ব্যাংক অ্যাকাউন্টের অন্যান্য সুবিধা নিতে সহযোগিতা দেয়ার মাধ্যমে ব্র্যাক ব্যাংক অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তি কার্যক্রম বাস্তবায়ন ও সম্প্রসারণ করে চলছে।
নারীকেন্দ্রিক পূর্ণাঙ্গ অফারিংয়ের মাধ্যমে নারীর আর্থিক ক্ষমতায়নেও প্রতিশ্রুতিবদ্ধ রয়েছে ব্র্যাক ব্যাংক। ঞঅজঅ ব্যাংকটির এমনই একটি সার্ভিস, যা অর্থনৈতিক ব্যবস্থার মূলধারার মধ্যে নিয়ে আসার মাধ্যমে নারীদের সামাজিক ও অর্থনৈতিক উন্নয়নে সহায়ক ভূমিকা পালন করছে। এই ধারণা ও বিশ^াসের অংশ হিসেবে ব্যাংকের কর্মকর্তাদের ক্ষেত্রেও লিঙ্গ সমতার বিষয়টিকে জোর দেয়া হয়েছে।
ব্র্যাক ব্যাংক এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন বলেন:
“সিডিসি’র ঋণ সহায়তা ব্র্যাক ব্যাংক-কে রপ্তানিমুখী বাংলাদেশি ব্যবসা প্রতিষ্ঠানগুলোর জন্য ঋণ সুবিধা সম্প্রসারণের মাধ্যমে আরও বড় আকারে আন্তর্জাতিক বাজারে প্রবেশের সুযোগ করে দিবে। বাংলাদেশ যখন স্বল্পোন্নত দেশ থেকে মধ্যম আয়ের দেশে পরিণত হবার দিকে এগুচ্ছে, এরকম সময়ে জিডিপি’র প্রবৃদ্ধির লক্ষ্যে দেশের ব্যবসায়ীদের আন্তর্জাতিক বাজারে আরও ব্যবসা প্রসার করা উচিত। শক্তিশালী সুশাসন, গ্রাহক বৃদ্ধির কার্যকর কৌশল এবং ঝুঁকি ব্যবস্থাপনা পদ্ধতির ওপর নির্ভর করে ব্র্যাক ব্যাংক-ই আগামী বছরগুলোতে উচ্চ প্রবৃদ্ধি অর্জনে এই ঋণের সুবিধাটির সর্বোচ্চ কাজে লাগানোর ক্ষেত্রে আদর্শ অবস্থানে রয়েছে। বাংলাদেশের মতো প্রতিশ্রুতিশীল উদীয়মান বাজারের ব্যবসাগুলোর জন্য আরও বড় সুযোগের পথ তৈরিতে যুক্তরাজ্যের এই খ্যাতনামা উন্নয়ন অর্থায়ন সংস্থাটির সাথে অংশিদারিত্বে আসতে পেরে আমরা গর্বিত।”
সিডিসি গ্রুপ পিএলসি এর ম্যানেজিং ডিরেক্টর এন্ড হেড অব এশিয়া শ্্রীনি নাগরাজন বলেন, ব্র্যাক ব্যাংকের জন্য প্রতিশ্রুত আমাদের অর্থায়ন সুবিধা বাংলাদেশে অর্থনৈতিক অন্তর্ভুক্তিকে এগিয়ে নিবে, এসএমই-ব্যবসায় ঋণ সুবিধা বাড়াবে এবং নারীদের অর্থনৈতিক ক্ষমতায়নকেও আরও সামনে নিয়ে যাবে। এই তিন সুফলের প্রত্যেকটিই অর্থনৈতিক সমৃদ্ধিকে সহযোগিতা দেয়ার বিনিয়োগের ক্ষেত্রে সিডিসি’র প্রক্রিয়ায় ও বিশ^াসে একেকটি মূল কৌশলের জায়গা। একটি উন্নয়ন অর্থায়ন প্রতিষ্ঠান হিসেবে আমাদের এই দীর্ঘমেয়াদি অর্থায়নের সুযোগ বৃদ্ধির ক্ষেত্রে বাংলাদেশের ব্যাংকিং খাতে রূপান্তরকারী ভূমিকা পালন করবে এবং স্থানীয় জনগোষ্ঠীর জন্য ঋণ গ্রহণ সুবিধা বৃদ্ধি পাবে।
ব্র্যাক ব্যাংক অন্যতম শীর্ষস্থানীয় একটি স্থানীয় ব্যাংক, যা একটি দক্ষ ব্যবস্থাপনা দ্বারা পরিচালিত। আমরা বাংলাদেশে ব্যাংকটির সক্ষমতা বাড়ানোর উদ্দেশ্যে তাদের সাথে কাজের ব্যাপারে বেশ আশাবাদী।
সিডিসি আশির দশক থেকে বাংলাদেশে বিনিয়োগ করে আসছে। এবং গত দশ বছরে বাংলাদেশে দায়িত্বশীলতার সাথে ২০৫ মিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের প্রতিশ্রুতি করেছে। আর ত্রিশ বছরেরও বেশি সময় ধরে বৃহত্তর দক্ষিণ এশিয়ায় তিন শতাধিক অংশিদারের নিকট প্রায় ২ বিলিয়ন মার্কিন ডলারের পুঁজি সহায়তা দিয়েছে। ২০১৮ থেকে ২০২১ সালের মধ্যে দক্ষিণ এশিয়ায় আরও ১.৭ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগের প্রতিশ্রুতির অংশ হিসেবে ইকুইটি, কর্পোরেট ঋণ, প্রকল্প ফাইন্যান্স এবং ফান্ড ইনভেস্টমেন্ট-সহ নানা রকম সহজ বিনিয়োগ সমাধান দিচ্ছে সিডিসি।
১ অক্টোবর ২০১৯ ঢাকায় এক অনুষ্ঠানে চুক্তিপত্র হস্তান্তর করেন ব্র্যাক ব্যাংক এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক ও প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা সেলিম আর. এফ. হোসেন, সিডিসি গ্রুপ এর সিইও নিক ওডোনো। এ সময় উভয় প্রতিষ্ঠানের উধ্বতন কর্মকর্তাবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

Please follow and like us:

About bdsomoy