সোমবার, এপ্রিল ২২, ২০২৪
প্রচ্ছদঅর্থ ও বানিজ্য সময়চট্টগ্রামে তিন দিনব্যাপী ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা শুরু

চট্টগ্রামে তিন দিনব্যাপী ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা শুরু

চট্টগ্রাম প্রতিনিধিঃ (বিডিসময়২৪ডটকম)

 

বন্দরনগরী চট্টগ্রামে শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী ‘চট্টগ্রাম ঈদ ই-বাণিজ্য ও ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা-২০১৩’। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়াম-সংলগ্ন জিমনেশিয়ামে এ মেলার উদ্বোধন করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নজরুল ইসলাম খান।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো. নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘তথ্যপ্রযুক্তি বিকাশে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত, পাকিস্তান, চীন আমাদের তুলনায় অনেক এগিয়ে ছিল। তবে সাম্প্রতিক সময়ের ব্যাপক প্রচারণার ফলে অনলাইন ও তথ্যপ্রযুক্তি বিকাশে এ খাতে বৃদ্ধির হারে আমরা এখন ভারতের কাছাকাছি।’
চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক আবদুল মান্নানের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ আবদুল্লাহ, চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিন ইব্রাহিম খান এবং প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ইফতেখার মুনির প্রমুখ।
নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘বাংলাদেশে তথ্যপ্রযুক্তির বিকাশে আমাদের সবাইকে আরো বেশি সচেতন হতে হবে। এজন্য সবাইকে এ বিষয়ে খোঁজখবর রাখতে হবে। এ ব্যাপারে ব্যাপক প্রচারণা চালাতে হবে এবং সর্বোপরি মানুষকে বিষয়টি সম্পর্কে অবহিত করতে হবে। ভিশন-২০২১ পূরণ করার লক্ষ্যে বিভিন্ন কর্মকাণ্ডের চিত্র তুলে ধরে তিনি বলেন, মানুষের জীবনযাত্রা সহজ করার জন্য মোবাইল ব্যাংকিং চালু করা হয়েছে। ১২০টি পোস্ট অফিসকে অনলাইনের আওতাভুক্ত করা হয়েছে। এছাড়া অনেক কিছু অনলাইনের আওতাভুক্ত হয়েছে।
মেলায় বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়, ব্যাংক, অনলাইন সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান, তথ্যপ্রযুক্তি-সংশ্লিষ্ট ৫২টি স্টল রয়েছে। আগামী শনিবার এ মেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।

চট্টগ্রামে তিন দিনব্যাপী ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা শুরু
বন্দরনগরী চট্টগ্রামে শুরু হয়েছে তিন দিনব্যাপী ‘চট্টগ্রাম ঈদ ই-বাণিজ্য ও ডিজিটাল উদ্ভাবনী মেলা-২০১৩’। গতকাল বৃহস্পতিবার সকালে চট্টগ্রাম এমএ আজিজ স্টেডিয়াম-সংলগ্ন জিমনেশিয়ামে এ মেলার উদ্বোধন করেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. নজরুল ইসলাম খান।
উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে মো. নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘তথ্যপ্রযুক্তি বিকাশে পার্শ্ববর্তী দেশ ভারত, পাকিস্তান, চীন আমাদের তুলনায় অনেক এগিয়ে ছিল। তবে সাম্প্রতিক সময়ের ব্যাপক প্রচারণার ফলে অনলাইন ও তথ্যপ্রযুক্তি বিকাশে এ খাতে বৃদ্ধির হারে আমরা এখন ভারতের কাছাকাছি।’
চট্টগ্রাম জেলা প্রশাসক আবদুল মান্নানের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন বিভাগীয় কমিশনার মোহাম্মদ আবদুল্লাহ, চট্টগ্রাম প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের ডিন ইব্রাহিম খান এবং প্রিমিয়ার বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক ইফতেখার মুনির প্রমুখ।
নজরুল ইসলাম খান বলেন, ‘বাংলাদেশে তথ্যপ্রযুক্তির বিকাশে আমাদের সবাইকে আরো বেশি সচেতন হতে হবে। এজন্য সবাইকে এ বিষয়ে খোঁজখবর রাখতে হবে। এ ব্যাপারে ব্যাপক প্রচারণা চালাতে হবে এবং সর্বোপরি মানুষকে বিষয়টি সম্পর্কে অবহিত করতে হবে। ভিশন-২০২১ পূরণ করার লক্ষ্যে বিভিন্ন কর্মকাণ্ডের চিত্র তুলে ধরে তিনি বলেন, মানুষের জীবনযাত্রা সহজ করার জন্য মোবাইল ব্যাংকিং চালু করা হয়েছে। ১২০টি পোস্ট অফিসকে অনলাইনের আওতাভুক্ত করা হয়েছে। এছাড়া অনেক কিছু অনলাইনের আওতাভুক্ত হয়েছে।
মেলায় বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়, ব্যাংক, অনলাইন সেবা প্রদানকারী প্রতিষ্ঠান, তথ্যপ্রযুক্তি-সংশ্লিষ্ট ৫২টি স্টল রয়েছে। আগামী শনিবার এ মেলার সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থাকবেন তথ্যমন্ত্রী হাসানুল হক ইনু।
আরও পড়ুন

সর্বশেষ