ব্রেকিং নিউজ
Home / আরো খবর……

আরো খবর……

আওয়ামী লীগ সরকারের এক যুগে সেরা ১২ জন মন্ত্রী

8A45E713-41FD-418C-A00A-2C259C0CFA49

২০০৯ সালের ৬ জানুয়ারি শেখ হাসিনার নেতৃত্বে সরকার গঠন করেছিল আওয়ামী লীগ। সেই থেকে টানা তিন মেয়াদে ক্ষমতায় আছে দলটি। আজ আওয়ামী লীগ সরকারের এক যুগ পূর্তি হচ্ছে। আগামীকাল বর্তমান মন্ত্রীসভার দুবছর পূর্ণ হবে। ১২ বছরে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ঘুরিয়ে ...

বিস্তারিত »

সাবেক ডেপুটি স্পিকার শওকত আলীর মৃত্যুতে পররাষ্ট্রমন্ত্রীর শোক

Momen-min

জাতীয় সংসদের সাবেক ডেপুটি স্পিকার কর্ণেল (অব.) শওকত আলীর মৃত্যুতে গভীর শোক ও দুঃখ প্রকাশ করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ. কে. আব্দুল মোমেন। এক শোক বার্তায় পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, অত্যন্ত সজ্জন এবং দৃঢ় চিত্তের অধিকারী শওকত আলীর সাথে আমার ঘনিষ্ঠতা ছিল বহুদিনের। ...

বিস্তারিত »

সৌখিন শারীরিক সম্পর্ক বাড়ছে

EF0B79B3-7920-4DAB-A8CC-0ABA6B4D33A4

আতিক হাসান (ছদ্মনাম)। পড়াশোনা করছেন একটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে। করোনার কারণে হল বন্ধ। তাই অগত্যা বাড়ি চলে যান। গ্রামের বাড়ি ঢাকার একদম পাশে। ঘণ্টা দুয়েকের পথ। লক ডাউনের পুরোটা সময় ছিলেন বাড়িতে। কিন্তু বাড়িতে গিয়ে অস্থির হয়ে উঠে আতিক। দীর্ঘ দিন ...

বিস্তারিত »

জাহালমকে ১৫ লাখ টাকা দিতে ব্র্যাক ব্যাংককে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত

Zahalam

নিরীহ পাটকলশ্রমিক জাহালমকে এক মাসের মধ্যে ১৫ লাখ টাকা দিতে ব্র্যাক ব্যাংককে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত। বুধবার বিচারপতি এফ আর নাজমুল আহসান ও বিচারপতি কেএম কামরুল কাদেরের হাইকোর্ট বেঞ্চ এই আদেশ দেন। দুদকের আইনজীবী খুরশিদ আলম খান বিষয়টি নিশ্চিত করেন। এ ...

বিস্তারিত »

মধ্যপ্রাচ্যের শীর্ষস্থানীয় রিটেইলার লুলু হাইপার মার্কেট ও বাংলাদেশি শীর্ষস্থানীয় রপ্তানিকারকদের মতবিনিময় সভা

Photo_53

বাহরাইনে বাংলাদেশ দূতাবাসের উদ্যোগে মধ্যপ্রাচ্যের  শীর্ষস্থানীয় চেইন সুপারমার্কেট লুলু হাইপারমার্কেট ও বাংলাদেশের শীর্ষস্থানীয় রপ্তানিকারকদের মধ্যে ২৯ সেপ্টেম্বর আড়াই ঘন্টাব্যাপী একটি ওয়েব সেমিনার অনুষ্ঠিত হয়েছে। মতবিনিময় সভায় দূতাবাসের কাউন্সেলর ও দূতালয় প্রধান মোঃ রবিউল ইসলামের পরিচালনায় অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন রাষ্ট্রদূত ড. ...

বিস্তারিত »

সরকারি চাকরিতে বয়সে ছাড় দিয়ে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের নির্দেশ

GOVT LOGO JANO PROSASON

বিসিএস ছাড়া সরকারি চাকরিতে প্রবেশকালে নিয়োগ বিজ্ঞপ্তিতে চাকরি প্রার্থীদের সর্বোচ্চ বয়সসীমা নির্ধারণ করে দিয়েছে সরকার। ১৭ সেপ্টেম্বর জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয় এক আদেশে ২৫ মার্চকে ৩০ বছর ধরে বিজ্ঞপ্তি প্রকাশের নির্দেশনা দিয়েছে। এতে বলা হয়েছে, ২৫ মার্চের আগে নিয়োগের ছাড়পত্র গ্রহণসহ সার্বিক ...

বিস্তারিত »

আঙ্কারায় বাংলাদেশ দূতাবাস ভবন

turkey-BD office

বাংলাদেশের ইতিহাস, ঐতিহ্য আর মুক্তিযুদ্ধের নানা স্মৃতি তুলে ধরে নির্মাণ হয়েছে তুরস্কের রাজধানী আঙ্কারায় বাংলাদেশ দূতাবাস ভবন। বিদেশের বুকে একখণ্ড বাংলাদেশ যেন এ ভবনটি। ভবনের উদ্বোধন করতে তাই করোনার মধ্যেই প্রথমবারের মতো বিদেশ সফর করেছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন। প্রধানমন্ত্রী ...

বিস্তারিত »

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের শাহাদত বার্ষিকী ও শোক দিবস উপলক্ষে বিএইচবিএফসি’র ভার্চুয়াল আলোচনা সভা

EC4E9EEF-F154-42DE-89A9-2994C02B2DB0

সর্বকালের সর্বশ্রেষ্ঠ বাঙালি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এর ৪৫তম শাহাদত বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস-২০২০ উপলক্ষে বাংলাদেশ হাউস বিল্ডিং ফাইনান্স কর্পোরেশনের উদ্যোগে ২৭ আগস্ট, ২০২০ তারিখ রোজ বৃহস্পতিবার এক ভার্চুয়াল আলোচনা সভার আয়োজন করা হয়। অনুষ্ঠানে ব্যবস্থাপনা পরিচালক ...

বিস্তারিত »

করোনা ভ্যাকসিনকে পুঁজি করে শত কোটি ডলার পকেটে ভরছেন করপোরেট নির্বাহীরা!

BC3E3902-57D2-4858-AEE9-24308DBBD125

প্রাণঘাতী করোনাভাইরাসে বিপর্যস্ত গোটা বিশ্ব। এই ভাইরাসের তাণ্ডবে দিশেহারা বিশ্বের ২১৩টি দেশ। সবচেয়ে শোচনীয় অবস্থা বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষমতাধর রাষ্ট্র আমেরিকার।  ব্রিটেন, ইতালি, স্পেন, ফ্রান্স ও ব্রাজিলও পরিণত হয়েছে ধ্বংসযজ্ঞে।  এখনও পর্যন্ত কার্যকরী কোনও প্রতিধেষক আবিষ্কার সম্ভব না হওয়ায় বিশ্বব্যাপী বেপরোয়া ...

বিস্তারিত »

তাজউদ্দীন আহমদের ৯৫ তম জন্মবার্ষিকী ২৩ জুলাই

0412843C-3756-47A7-BBF4-E16D78E10B25

 ২৩ জুলাই ২০২০ মুক্তিযুদ্ধে নেতৃত্বদানকারী গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রথম প্রধানমন্ত্রী, জাতীয়নেতা তাজউদ্দীন আহমদের ৯৫ তম জন্মবার্ষিকী। ১৯২৫ সালের ২৩ জুলাই ঢাকার অদূরে কাপাসিয়ার দরদরিয়া গ্রামে তিনি জন্মগ্রহন  করেন। তাজউদ্দীন আহমদ বাংলাদেশের রাজনীতিতে মেধা, দক্ষতা, যোগ্যতা, সততা ও আদর্শবাদের অনন্য এক প্রতীক। তাজউদ্দীন আহমদ অল্পবয়সে ছাত্রজীবনেই সমাজসেবার মধ্যদিয়ে রাজনীতিতে জড়িত হন। ১৯৪৭ সালে দেশ বিভাগের পর থেকে এদেশে ভাষার অধিকার, অর্থনৈতিক মুক্তি এবং সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী যত আন্দোলন হয়েছে তার প্রতিটিতে তিনি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন। আওয়ামী লীগের গঠন প্রক্রিয়ার মূল উদ্যোক্তাদের তিনি একজন। ১৯৬৬ সালে তিনি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। ওই বছরই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাঙালির মুক্তি সনদ ৬ দফা ঘোষণা করেন। ৬ দফার অন্যতম রূপকার ছিলেন তাজউদ্দীন আহমদ। তাজউদ্দীন আহমদ ছিলেন বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ট সহচর। ১৯৭০ সালের পাকিস্তানের নির্বাচনের পর সামরিক শাসক গোষ্ঠী আওয়ামী লীগের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর না করলে ১৯৭১ সালের মার্চ মাসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে শুরু হয় অসহযোগ আন্দোলন। এই অসহযোগ আন্দোলন পরিচালনায় তাজউদ্দীন আহমদ যথেষ্ট সাংগঠনিক দক্ষতা ও বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দেন। এরপর ২৬ মার্চ রাতের প্রথম প্রহরে পাকিস্তান সামরিক বাহিনী বঙ্গবন্ধুকে গ্রেফতারের পর শুরু করে একতরফা হত্যাযজ্ঞ। বঙ্গবন্ধুর ডাকে শুরু হয় বাঙালির সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধ। বঙ্গবন্ধুর অনুপস্থিতিতে তখন নেতৃত্বের মূল দায়িত্ব অর্পিত হয় তাজউদ্দীন আহমদের ওপর। তাঁর জীবনের শ্রেষ্ঠ কীর্তি ১৯৭১ সালে এক চরম সংকটময় মুহূর্তে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার গঠন করে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধে সফল ভূমিকা পালন। এই গুরু দায়িত্ব তাজউদ্দীন আহমদ অত্যন্ত সূনিপুন ভাবে পালন করেন যার ফলে মাত্র নয় মাসের মধ্যে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জিত হয়। স্বাধীনতার পর বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন পর্যন্ত তাজউদ্দীন আহমদ প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। এরপর বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বধীন সরকারে তিনি অর্থ ও পরিকল্পনা মন্ত্রীর দায়িত্ব নেন। পরবর্তীতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশে ১৯৭৪ সালের ২৬ অক্টোবর তিনি মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগ করেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ক্ষমতা দখলকারী ঘাতকচক্র নিমর্মভাবে সপরিবারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে হত্যার পর তাজউদ্দীন আহমদকে গৃহবন্দি করে। এরপর তাঁকে জেলখানায় বন্দি করে রাখা হয়। বন্দি থাকা অবস্থায় তাঁকে এবং আরো তিন জাতীয় নেতাকে জেলখানার ভেতরে ঢুকে’৭৫ এর ৩ নভেম্বর ঘাতকচক্র নিষ্ঠুরভাবে হত্যা করে। ২৩ জুলাই ২০২০ মুক্তিযুদ্ধে নেতৃত্বদানকারী গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকারের প্রথম প্রধানমন্ত্রী, জাতীয়নেতা তাজউদ্দীন আহমদের ৯৫ তম জন্মবার্ষিকী। ১৯২৫ সালের ২৩ জুলাই ঢাকার অদূরে কাপাসিয়ার দরদরিয়া গ্রামে তিনি জন্মগ্রহন  করেন। তাজউদ্দীন আহমদ বাংলাদেশের রাজনীতিতে মেধা, দক্ষতা, যোগ্যতা, সততা ও আদর্শবাদের অনন্য এক প্রতীক। তাজউদ্দীন আহমদ অল্পবয়সে ছাত্রজীবনেই সমাজসেবার মধ্যদিয়ে রাজনীতিতে জড়িত হন। ১৯৪৭ সালে দেশ বিভাগের পর থেকে এদেশে ভাষার অধিকার, অর্থনৈতিক মুক্তি এবং সাম্প্রদায়িকতা বিরোধী যত আন্দোলন হয়েছে তার প্রতিটিতে তিনি গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রেখেছেন। আওয়ামী লীগের গঠন প্রক্রিয়ার মূল উদ্যোক্তাদের তিনি একজন। ১৯৬৬ সালে তিনি আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক নির্বাচিত হন। ওই বছরই বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান বাঙালির মুক্তি সনদ ৬ দফা ঘোষণা করেন। ৬ দফার অন্যতম রূপকার ছিলেন তাজউদ্দীন আহমদ। তাজউদ্দীন আহমদ ছিলেন বঙ্গবন্ধুর ঘনিষ্ট সহচর। ১৯৭০ সালের পাকিস্তানের নির্বাচনের পর সামরিক শাসক গোষ্ঠী আওয়ামী লীগের হাতে ক্ষমতা হস্তান্তর না করলে ১৯৭১ সালের মার্চ মাসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের নেতৃত্বে শুরু হয় অসহযোগ আন্দোলন। এই অসহযোগ আন্দোলন পরিচালনায় তাজউদ্দীন আহমদ যথেষ্ট সাংগঠনিক দক্ষতা ও বুদ্ধিমত্তার পরিচয় দেন। এরপর ২৬ মার্চ রাতের প্রথম প্রহরে পাকিস্তান সামরিক বাহিনী বঙ্গবন্ধুকে গ্রেফতারের পর শুরু করে একতরফা হত্যাযজ্ঞ। বঙ্গবন্ধুর ডাকে শুরু হয় বাঙালির সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধ। বঙ্গবন্ধুর অনুপস্থিতিতে তখন নেতৃত্বের মূল দায়িত্ব অর্পিত হয় তাজউদ্দীন আহমদের ওপর। তাঁর জীবনের শ্রেষ্ঠ কীর্তি ১৯৭১ সালে এক চরম সংকটময় মুহূর্তে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার গঠন করে প্রধানমন্ত্রী হিসেবে পাকিস্তানের বিরুদ্ধে সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধে সফল ভূমিকা পালন। এই গুরু দায়িত্ব তাজউদ্দীন আহমদ অত্যন্ত সূনিপুন ভাবে পালন করেন যার ফলে মাত্র নয় মাসের মধ্যে বাংলাদেশের স্বাধীনতা অর্জিত হয়। স্বাধীনতার পর বঙ্গবন্ধুর স্বদেশ প্রত্যাবর্তন পর্যন্ত তাজউদ্দীন আহমদ প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করেন। এরপর বঙ্গবন্ধুর নেতৃত্বধীন সরকারে তিনি অর্থ ও পরিকল্পনা মন্ত্রীর দায়িত্ব নেন। পরবর্তীতে বঙ্গবন্ধুর নির্দেশে ১৯৭৪ সালের ২৬ অক্টোবর তিনি মন্ত্রিসভা থেকে পদত্যাগ করেন। ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট ক্ষমতা দখলকারী ঘাতকচক্র নিমর্মভাবে সপরিবারে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবকে হত্যার পর তাজউদ্দীন আহমদকে গৃহবন্দি করে। এরপর তাঁকে জেলখানায় বন্দি করে রাখা হয়। বন্দি থাকা অবস্থায় তাঁকে এবং আরো তিন জাতীয় নেতাকে জেলখানার ভেতরে ঢুকে’৭৫ এর ৩ নভেম্বর ঘাতকচক্র নিষ্ঠুরভাবে হত্যা করে।

বিস্তারিত »