ব্রেকিং নিউজ

রাজাকারের মতো জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল একটা ঘৃণিত শব্দে পরিণত হতে যাচ্ছে : মেজর (অব.) হাফিজ

বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান মেজর (অব.) হাফিজ উদ্দিন বীরবিক্রম সরকারকে হুঁশিয়ার করে বলেন, ‘রাজাকারের মতো’ জামুকা (জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিল) একটা ঘৃণিত শব্দে পরিণত হতে যাচ্ছে। তিনি বলেন, জিয়াউর রহমানের খেতাব কেড়ে নেয়ার ঘৃণ্য উদ্যোগ নিয়ে নিজেদেরকে নব্য রাজাকার বানাবেন না। আগামী প্রজন্ম আপনাদেরকে এ কাজের জন্য নব্য রাজাকার হিসেবে চিহিৃত করবে। ১৪ ফেব্রুয়ারি জাতীয় প্রেসক্লাবে জাতীয়তাবাদী মুক্তিযোদ্ধা দল ও মুক্তিযুদ্ধের প্রজন্মের এক বিক্ষোভ সমাবেশে মেজর (অব.) হাফিজ এসব কথা বলেন।

মুক্তিযুদ্ধের কমান্ডারের দেয়া জিয়ার খেতাব ছিনিয়ে নেয়ার ষড়যন্ত্র করছে একটি কুচক্রীমহল উল্লেখ করে তিনি বলেন, জিয়া কখনো কোনো ষড়যন্ত্রের সঙ্গে জড়িত ছিলেন না। ১৯৭৭ সালে জিয়াকে ক্ষমতা থেকে উৎখাতের ষড়যন্ত্র করেছে মেজর ফারুক। শক্ত হাতে জিয়াউর রহমান সে বিদ্রোহ দমন করেছেন। কিন্তু সরকারের নেতারা জিয়াকে বঙ্গবন্ধু হত্যার সঙ্গে জড়াতে চায়। মিথ্যাকে সত্য করার চেষ্টায় লিপ্ত সরকার। মেজর (অব.) হাফিজ বলেন, ১৯৭২ সাল থেকে মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসকে বিকৃত করার চেষ্টা করছে সরকার। দলীয় লোকদের মুক্তিযুদ্ধের লেবাস পরানোর চেষ্টা করছে। এ সময় তিনি পৌরসভা নির্বাচন প্রসঙ্গে বলেন, আজকের পৌরসভা নির্বাচনে বিএনপির প্রার্থীদের অবরুদ্ধ করে রেখেছে সরকার। ভোটকেন্দ্রে গিয়ে ভোটারদের ভোট দিতে বাধা দেওয়া হচ্ছে। সাবেক রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমান ‘বীরউত্তম’-এর খেতাব প্রত্যাহারের হীন ষড়যন্ত্রের প্রতিবাদে এই সমাবেশ আয়োজন করা হয়।

About bdsomoy