ব্রেকিং নিউজ

করোনা দুর্যোগে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে ফোবানা

করোনাভাইরাসের প্রাদুর্ভাবের এই সময়ে দুর্যোগ ও ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে দাঁড়াতে উত্তর আমেরিকার ফোবানার কেন্দ্রীয় কমিটি প্রথমবারের মতো ‘দুর্যোগ মোকাবিলা ত্রাণ প্রকল্প’ হাতে নিয়েছে। সংগঠনটি সাহায্যের হাত বাড়িয়ে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের পাশে দাঁড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছে।

এই দুর্যোগ মোকাবিলা প্রকল্পের আওতায় ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারে খাবার ও নিত্য প্রয়োজনীয় সামগ্রী প্রদান করা হবে। বর্তমানে সবচেয়ে বেশি ক্ষতিগ্রস্ত নিউইয়র্ক, নিউজার্সি ও মিশিগানসহ অন্য অঙ্গরাজ্যে ক্ষতিগ্রস্ত বাংলাদেশি পরিবারে এই সেবা পৌঁছে দিতে পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে। এ ছাড়া বাংলাদেশের নীলফামারীর প্রত্যন্ত অঞ্চলে অবহেলিত ২৩২টি পরিবারের জন্য ফোবানার পক্ষ থেকে ইতিমধ্যে ত্রাণ সামগ্রী পৌঁছে দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। বাংলাদেশের অন্যান্য এলাকায় যথাসম্ভব এই সেবাদান কর্মসূচি নেওয়া হবে।

ফোবানার পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে, ‘দুর্যোগ মোকাবিলা ত্রাণ প্রকল্প’ তহবিলে ৩০ হাজার ডলারের লক্ষ্যমাত্রা থাকলেও ইতিমধ্যে ১৪ হাজার ডলার সংগ্রহ হয়েছে। অর্থ সংগ্রহ অব্যাহত রয়েছে। এই দুর্যোগের সময় বাংলাদেশি কমিউনিটির সবাইকে এগিয়ে আসার জন্য ফোবানার পক্ষ থেকে বিনীত অনুরোধ জানানো হয়েছে।

১৯ এপ্রিল ফোবানার আয়োজনে কোভিড-১৯ মহামারি থেকে উত্তরণের প্রত্যাশায় অনলাইনে আন্তঃধর্মীয় প্রার্থনা ও দোয়া অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ ছাড়া আমেরিকাপ্রবাসী চিকিৎসকদের সহযোগিতায় বাঙালিদের জন্য ফোবানার পক্ষ থেকে জরুরি স্বাস্থ্যসেবা হটলাইন চালু করা হয়েছে। চিকিৎসা সেবা নিতে চিকিৎসক মোহাম্মদ আলী মানিক (৪০৪-৭০২-৬১৪৬) ও গোলাম মোস্তফার (৭১৭-৩২৯-৮১০৭) নম্বরে ফোন করে যোগাযোগ করার অনুরোধ জানানো হয়েছে।

ফোবানার পক্ষ থেকে তহবিল সংগ্রহে ফেসবুক পেজ খোলা হয়েছে। এ ছাড়া ফোবানার ওয়েবসাইটে ফেসবুক পেমেন্ট ও পেপাল পেমেন্ট করা যাবে।
এ ছাড়া যেকোনো তথ্যের জন্য ফোবানার চেয়ারম্যান শাহ হালিম (২৮১-৭৪৮-৯৮৮০) ও এক্সিকিউটিভ সেক্রেটারি আহসান চৌধুরীর (৫১২-৪১৩-৯১৯৩) নম্বরে যোগাযোগ করা যাবে।

About bdsomoy