ব্রেকিং নিউজ

সন্ধানী চমেকের আয়োজনে পালিত হলো প্রচার সপ্তাহ, সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে সমাপ্তি

সন্ধানী চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ ইউনিট ২রা নভেম্বর থেকে ৮ই নভেম্বর পর্যন্ত প্রচার সপ্তাহ উদযাপন করে ও নানাবিধ মানব কল্যাণমূলক কার্যক্রম পরিচালনা করে।কাকার্যক্রমগুলো হল

২রা নভেম্বরঃ
“জাতীয় স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মরণোত্তর চক্ষুদান দিবস” উপলক্ষ্যে চমেক ক্যাম্পাসে বর্ণাঢ্য র‍্যালির আয়োজন করা হয়। র‍্যালিতে বেলুন ও পায়রা উড়িয়ে এবং দেয়ালিকা উন্মোচনের মাধ্যমে দিবসটির ও প্রচার সপ্তাহের শুভ উদ্বোধন করা হয়।একইদিনে সন্ধানী চমেক ইউনিটের কার্যালয়ে নতুন সংযোজিত মাল্টিমিডিয়া সেট ও এসি এর উদ্বোধন করা হয়।তাছাড়া “হিমোফিলিয়া সোসাইটি অফ বাংলাদেশ”- এর উদ্যোগে ১০জন দুঃস্থদের বিনামূল্যে হেপাটাইটিস বি স্ক্রিনিং এবং টিকা দেয়া হয়।সেইসাথে নগরীর জিইসি এলাকায় একটি স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মোটিভেশন প্রোগ্রাম এর আয়োজন করা হয়। উক্ত প্রোগ্রামে তিনজন ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন।
৩রা নভেম্বরঃ
নগরীর চকবাজার এলাকায় একটি স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মোটিভেশন প্রোগ্রাম এর আয়োজন করা হয়।উক্ত প্রোগ্রামে একজন ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন।
৪ নভেম্বরঃ
আরামিট গ্রুপের উদ্যোগে কালুরঘাট-এ একটি ব্লাড গ্রুপিং এবং হেপাটাইটিস বি-স্ক্রিনিং প্রোগ্রামের আয়োজন করা হয়।সেখানে ৪০জনের ব্লাড গ্রুপিং ও ৬০জনের হেপাটাইটিস বি স্ক্রিনিং করা হয়।

৫ নভেম্বরঃ নগরীর আন্দরকিল্লা এলাকায় একটি স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মোটিভেশান প্রোগ্রামের আয়োজন করা হয়। উক্ত প্রোগ্রামে ২জন ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন।

৬ নভেম্বরঃ “অগ্রনী ব্যাংক লিমিটেড” এর আগ্রাবাদ শাখায় একটি সেমিনারের আয়োজন করা হয়। উক্ত সেমিনারে মরণোত্তর চক্ষুদান ও ভ্যাক্সিনেশন বিষয়ে সচেতনতামূলক বক্তব্য প্রদান করা হয় এবং উপস্থিত সকলের মাঝে মরণোত্তর চক্ষুদানের অঙ্গীকারপত্র বিতরণ করা হয়। একইদিনে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায় একটি স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মোটিভেশান কর্মসূচি আয়োজন করা হয়। সেখানে ৬জন ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন।

৭ নভেম্বরঃ
ফিনলে স্কয়ার শপ ওনার্স এসোসিয়েশন এর উদ্যোগে ফিনলে স্কয়ার,২ নং গেইট এলাকায় একটি স্বেচ্ছায় রক্তদান,ব্লাড গ্রুপিং ও মোটিভেশান প্রোগ্রামের আয়োজন করা হয়। উক্ত প্রোগ্রামে ৮জন ব্যক্তি স্বেচ্ছায় রক্তদান করেন এবং ১০৬ জনের ব্লাড গ্রুপিং করা হয়।

৭)৯ই নভেম্বরঃ
চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবে বেলা ১১টায় একটি সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়।সেখানে সন্ধানীর কল্যানমূলক কার্যক্রম সম্পর্কে জানানো হয়। তাছাড়া স্বেচ্ছায় রক্তাদাতা ও মরণোত্তর চক্ষুদানে অঙ্গীকারবদ্ধদের মুঠোফোনে শুভেচ্ছাস্বরুপ ক্ষুদেবার্তা প্রেরণ করার ব্যবস্হা করা হয়।

তাছাড়াও প্রচার সপ্তাহ উপলক্ষ্যে হিউম্যান ও হিউম্যানিটি নামক একটা চিত্র প্রদর্শনী প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়।

স্বেচ্ছায় রক্তদান ও মরণােত্তর চক্ষুদানের বিষয়টিকে বিগত ৪দশক ধরে স্বেচ্ছা সেবার মাধ্যমে একটি জনপ্রিয় আন্দোলনে রূপ দিতে সক্ষম হয় মেডিকেল ও ডেন্টাল কলেজের ছাত্র-ছাত্রীদের মাধ্যমে পরিচালিত স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন সন্ধানী যার স্বীকৃতি স্বরুপ ২০০৪ সালে সংগঠনটি “স্বাধীনতা পদক” লাভ করে।কিন্তু মানবকল্যাণে নিয়োজিত সংগঠনটি নানা সীমাবদ্ধতার দরুন এর কার্যক্রম পরিচালনা করতে ব্যহত হচ্ছে।সংগঠনটির কার্যক্রমকে আরো গতিশীল করার জন্য একটা সায়েন্টিফিক ফ্রিজ প্রয়োজন, মোটিভেশন বাড়ানোর জন্য ফান্ডিং দরকার, সেবার পরিধি বৃদ্ধির জন্য Cell Separator প্রয়োজন এবং প্রচার কার্যে সহায়তা প্রয়োজন।এজন্য সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসার জন্য অনুরোধ করেছেন সন্ধানীয়ানরা।

শহীদ মিনারের পিছনে)
ফোনঃ ০৩১-৬১৬৬২৫।

About bdsomoy