ব্রেকিং নিউজ

দক্ষিণ চট্টগ্রামের অর্ধশত গ্রামের মানুষ উদযাপন করছেন পবিত্র ঈদুল আজহা

দক্ষিণ চট্টগ্রামের অর্ধশত গ্রামের মানুষ উদযাপন করছেন পবিত্র ঈদুল আজহা। ১১ আগস্ট সাতকানিয়ার মির্জাখীল দরবার শরীফের সাজ্জাদানশীন শাহ জাহাঁগীর তাজুল আরেফীন মৌলানা মোহাম্মদ আরেফুল হাই (ক.) এর উপস্থিতিতে দরবারের ঈদগাহে ঈদুল আজহার নামাজ অনুষ্ঠিত হয়। সকাল ৯টায় নামাজে ইমামতি করেন আলেমে দ্বীন ড. মৌলানা মোহাম্মদ মকছুদূর রহমান (ক.)।

মির্জাখীল দরবার শরীফের মুখপাত্র মোহাম্মদ মছউদুর রহমান জানান, সাতকানিয়ার নিকটবর্তী উপজেলাগুলো হতে সহস্রাধিক অনুসারী নামাজে অংশগ্রহণ করেছেন। এছাড়া আনোয়ারার তৈলারদ্বীপ, বরুমছড়া, চন্দনাইশের এলাহাবাদ, সাতবাড়িয়া, বরকল, কিশোরগঞ্জের কটিয়াদিসহ দেশের বিভিন্ন স্থানে ঈদুল আজহা পালন করা হচ্ছে। তুরষ্ক, জার্মানী, সুইজারল্যান্ড, ফ্রান্স, ভারত, শ্রীলংকাসহ বিশ্বের বিভিন্ন স্থানেও মির্জাখীল দরবার শরীফের অনুসারীরা আজ পবিত্র ঈদুল আজহা পালন করছেন। দিচ্ছেন পশু কোরবানি।

মির্জাখীল দরবার শরীফে ঈদুল আজহার নামাজ আদায়।সৌদি আরবের সঙ্গে মিল রেখে মির্জাখীল দরবার শরীফের অনুসারীরা দীর্ঘ ২০০ বছর ধরে পূর্বতন পীর-মুরশিদ প্রদত্ত রুইয়াতিল হেলাল বিষয়ক ফতোয়ার ভিত্তিতে পবিত্র ঈদুল ফিতর ও ঈদুল আজহা এবং চন্দ্র উদয় নির্ভর ইসলামী সব ইবাদত পালন করে আসছেন ।

এদিকে চন্দনাইশের জাহাঁগিরিয়া শাহ সুফি মমতাজিয়া দরবার শরিফ, পটিয়ার এলাহাবাদ দরবার শরীফের অনুসারীরাও ঈদুল আজহা উদযাপন করছেন। পার্বত্য জেলা বান্দরবানের লামা, আলীকদম, নাইক্ষ্যংছড়ি, কক্সবাজারের চকরিয়া, টেকনাফ, মহেশখালী, কুতুবদিয়া ও হ্নীলার কয়েকটি গ্রামের মানুষও ১১ আগস্ট ঈদুল আজহার নামাজ আদায় এবং পশু কোরবানি দিয়েছেন।

Please follow and like us:

About bdsomoy