পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে বাংলাদেশ

Angelina Jolii-momenমিয়ানমার থেকে পালিয়ে আসা রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে বাংলাদেশ দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতিসংঘ শরণার্থী বিষয়ক সংস্থার (ইউএনএইচসিআর) বিশেষ দূত ও হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। একই সঙ্গে নিজ বাসভূম রাখাইনে রোহিঙ্গাদের নিরাপদে ফিরিয়ে নেওয়ার জন্য তিনি মিয়ানমারের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।  ৬ ফেব্রুয়ারি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ড. এ কে আব্দুল মোমেন ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী  শাহরিয়ার আলমের সঙ্গে বৈঠকে মিয়ানমারের প্রতি এ আহ্বান জানান।

এর আগে বুধবার দুপুরে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে আসেন হলিউড তারকা অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। তিনি পররাষ্ট্রমন্ত্রী ও পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রীর বৈঠকে অংশ নেন। বৈঠক শেষে ড. এ কে আব্দুল মোমেন বলেন,  রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দেওয়ায় বাংলাদেশের প্রতি অ্যাঞ্জেলিনা জোলি  সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। জোলি বলেছেন, রোহিঙ্গাদের আশ্রয় দিয়ে বাংলাদেশ দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছে।  পররাষ্ট্রমন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে  আশ্রয় নেওয়া রোহিঙ্গাদের জন্য তহবিল সংগ্রহে ভূমিকা রাখার জন্য জোলিকে অনুরোধ করা হয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রে কোনো ইভেন্টের মাধ্যমে এই তহবিল সংগ্রহ করার সুপারিশ করেছি তাকে। এর পরিপ্রেক্ষিতে  জোলি বলেছেন, বিষয়টি তিনি দেখবেন।  পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে অ্যাঞ্জেলিনা জোলি পররাষ্ট্র সচিব এম শহীদুল হকের সঙ্গেও বৈঠক করেন।   হলিউড তারকা  অ্যাঞ্জেলিনা জোলি  ৪ দিনের  সফরে ৪ ফেব্রুয়ারি ঢাকায় আসার পরই কক্সবাজারের রোহিঙ্গা ক্যাম্প পরিদর্শন করেন।

২০১২ সাল থেকে ইউএনএইচসিআর-এর বিশেষ দূত হিসেবে কাজ করছেন হলিউড অভিনেত্রী অ্যাঞ্জেলিনা জোলি। এর আগে গতবছরে রোহিঙ্গা শিশুদের দেখতে এসেছিলেন জাতিসংঘের শিশু বিষয়ক সংস্থা ইউনিসেফের শুভেচ্ছা দূত প্রিয়াঙ্কা চোপড়া।

Please follow and like us:

About bdsomoy